নতুন রাজনৈতিক পরিকল্পনার কৌশল নিয়ে বিএনপি

নতুন রাজনৈতিক পরিকল্পনার কৌশল নিয়ে বিএনপি

নিজস্ব প্রতিবেদক
অতীতের ভুল থেকে শিক্ষা নিয়ে এবার রাজনৈতিক কৌশল ঠিক করছে বিএনপি। ভবিষ্যৎ কর্ম-কৌশল নিয়ে এরই মধ্যে একাধিক বৈঠকও করেছেন দলটির কেন্দ্রীয় নেতারা। এতে জনসমর্থন তৈরির পাশাপাশি প্রাধান্য পাচ্ছে কূটনৈতিক তৎপরতা। এ বছরের মাঝামাঝি থেকে মাঠে নামার চিন্তা তাদের।

জাতীয় নির্বাচন সামনে রেখে ২০২২-এর আগস্টে টানা কর্মসূচিতে যায় বিএনপি। বিক্ষোভ, মানববন্ধন দিয়ে শুরু করে বিভাগীয় সমাবেশ ও রোডমার্চে যায় তারা। ভোটের আগের দুই মাসে কখনও হরতাল, কখনও অবরোধ ডেকেছে। আবার কখনও হরতাল-অবরোধ দুটোই একসঙ্গে ডাকে দলটি। তারপরও মেলেনি কাঙ্ক্ষিত ফল।

২০১৪-১৮’র নির্বাচনের পর ২৪-এ এসে কিছুটা আশার সঞ্চার হলেও হুট করে কেন হোঁচট খেল সেই ধারাবাহিক আন্দোলন, এ প্রশ্নের কোনো কুল-কিনারা পাচ্ছেন না দলটির নেতারা। ভোটের তিন মাস পরও ঠিক হয়নি পরবর্তী কর্ম-কৌশল।

দলটির কেন্দ্রীয় কয়েকজন নেতার মত, অতীতের মতো এবারও নির্বাচন ইস্যুতে সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে পারেনি বিএনপি।

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান হাফিজ উদ্দিন আহমদ বলেন, নির্বাচন ঘিরে যে উদ্দেশ্য নিয়ে বিএনপি সামনে এগোচ্ছিল, সেটা তো পূরণ হয়নি। আন্তর্জাতিক সহায়তা নিয়ে বিএনপির নির্বাচনে অংশগ্রহণ করা উচিত ছিল।

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আহমেদ আযম খান বলেন, সামনে এগিয়ে যেতে হলে কোন কর্মসূচিগুলো বাস্তবায়িত হয়েছে এবং তার ফলাফল কি তা দেখতে হবে। এ ছাড়া কী কী কর্মসূচি ভবিষ্যতে নেওয়া যেতে পারে, সেটি নিয়ে আলোচনায় বসতে হবে।

আরেকটি অংশের দাবি, ব্যাপক জনপ্রিয়তা থাকার পরও দেশি-বিদেশি ষড়যন্ত্রের কারণে সফল হয়নি বিএনপি। এখন সব দিক বিবেচনা করেই নেওয়া হবে আগামীর পরিকল্পনা।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মঈন খান বলেন, ‘অতীতের ভুল থেকে শিক্ষা নিয়ে এবার রাজনৈতিক কৌশল ঠিক করতে হবে। সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে এই সরকারকে বুঝিয়ে দিতে হবে, অন্যায়ভাবে ক্ষমতা চিরস্থায়ী করা যায় না।’

এ ছাড়া আন্দোলন সফল করতে এবার শুরু থেকেই সমমনা দলগুলোকে পাশে রাখতে চায় ১৭ বছরেরও বেশি সময় ধরে ক্ষমতার বাইরে থাকা বিএনপি।

 

More News...

জাতীয় প্রেসক্লাবে বিড়ি শ্রমিকদের সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন

কৃষকদের টাকা দিলে ফেরত দেয়, কোটিপতিরা দেয় না’