পিএসএল বদলে দিলো চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের ভাবনা

পিএসএল বদলে দিলো চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের ভাবনা

ক্রীড়া প্রতিবেদক : ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক লিগের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) অনেক পরেই শুরু হয় পাকিস্তান সুপার লিগ (পিএসএল)। অথচ ধারাবাহিতার অভাবে বিপিএল বছরের পর বছর পিছিয়ে যেতে থাকলেও অবস্থান শক্ত অবস্থান করে নিয়েছে পিএসএল। জনপ্রিয়তা দিক থেকে বিপিএলকে উপরে তোলার চেষ্টা করা হলেও মূল জায়গায় এগিয়ে থাকল পিএসএল।

এক বছরের বিরতি কাটিয়ে আবারও মাঠে গড়াতে যাচ্ছে বাংলাদেশের ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক লিগ বিপিএল। অথচ করোনার মাঝেও গত বছর দারুণভাবে টুর্নামেন্ট শেষ করা পিএসএল এবারও মাঠে গড়াচ্ছে নির্দিষ্ট সময়ে। আর ধারাবাহিকতার সঙ্গে টুর্নামেন্ট শিডিউল বদলতে বদলতে এখন পিএসএলের সঙ্গে একই সময় টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে হচ্ছে বিসিবিকে। এতে করে বিদেশি নামিদামি ক্রিকেটারদের দলে পাওয়াটা কঠিন হয়ে যাচ্ছে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলোর ক্ষেত্রে। আর জৌলুস হারানোর শঙ্কা তো থাকছেই।

এবারের বিপিএলে সবার আগেই দল গঠনের প্রত্যয় নিয়ে মাঠে নামে আগের আসরের দল চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স। সেই হিসেবে শুরুর দিকে নিজেদের পুরোনো ক্রিকেটারদের নিয়েই দল গঠনের আভাস দিয়েছিল তারা। তাদের মধ্যে ছিলেন- লেন্ডল সিমন্স, চাডউইক ওয়ালটন, ক্রিস গেইলসহ অনেকেই। যারা এই আসরে ইতিমধ্যে পিএসএলের প্লেয়ার্স ড্রাফট থেকে বিভিন্ন দলে জায়গা পেয়েছেন। বাকি রয়েছেন শুধুই গেইল। এতে করে নতুন ভাবনায় এগোতে হচ্ছে চ্যালেঞ্জার্সকে- এমনটাই মনে করেন স্বত্বাধিকার প্রতিষ্ঠান আখতার গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রিফাদুজ্জামান।

আগের আসরের দলটিকে এবারের আসরেও কি পাচ্ছে চট্টগ্রাম এমন প্রশ্নের জবাবে এই পরিচালক বলেন, ‘আমাদের যেসব প্লেয়ার ভাবনায় ছিল তারা পিএসএলের ড্রাফটে দল পেয়েছে। এখন আমরা নতুন করে প্ল্যান করেছি। বিসিবি থেকে ফরমাল একটা ক্লিয়ারেন্স পাবো আজ-কালের মধ্যে, তখন এটা নিয়ে এগোতে পারবো। এখনো কোনো ক্রিকেটারের সঙ্গে চূড়ান্ত কিছু করতে পারিনি।’

তিনি বলেন, ‘আমরা অনেকগুলো নাম নির্বাচন করেছিলাম কিন্তু মজার বিষয় হলো আমরা যে ৬-৭ জনকে ভেবেছিলাম। সেখান থেকে ৪ জন পিএসএলে বিক্রি হয়েছে। এখন ওই জায়গাগুলোতে বিকল্প ভাবতে হচ্ছে। আজকে একটা মিটিং আছে, এরপর একটা জায়গায় যেতে পারবো। আরও ২-৩ দিন সময় লাগবে।’ তিনি আরও বলেন, ‘আমরা ওপেনিংয়ে একজনকে ভেবেছিলাম সে পিএসএলে দল পেয়েছে, তার বিকল্প হিসেবে একজনকে ভেবেছি সেও দল পেয়ে গেছে। তারও একজন বিকল্প ঠিক করে রেখেছিলাম দুর্ভাগ্যজনকভাবে সেও বিক্রি হয়ে যায়। ব্যাপারটা মজার লাগছে যে, অনেকগুলো সিলেকটেড প্লেয়ার পিএসএলে দল পেয়ে গেছে। মূলত গতকাল (পিএসএল ড্রাফটের পর) আমরা কাজ শুরু করেছি।’

তবে তাদের আরেক পুরোনো প্লেয়ার গেইল এবারের আসরে পিএসএলে দল পায়নি। এতে করে ফ্র্যাঞ্জাইজি ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় নাম গেইলে পেতে পারে তারা। এই নিয়া ভাবনা জানতে চাইলে রিফাদুজ্জামান বলেন, ‘হ্যাঁ গেইলের সঙ্গে কথা হয়েছে। সে নিজেও আমাদের আগ্রহ প্রকাশ করেছে। আমাদের টিম ম্যানেজমেন্ট যদি মনে করে তাকে রাখতে চায় তাহলে সে থাকবে। আমরাতো চিন্তা করছি, আমাদের মূল পরিকল্পনা হচ্ছে গতবারের দল থেকে যত বেশি ক্রিকেটার রাখা যায়। সেটা গেইল হোক কিংবা যত বেশি দেশি প্লেয়ার হোক।’

More News...

সল্টের ‘কালবৈশাখী ঝড়ে’ নববর্ষ বরণ কলকাতার

নেইমার পেলেন বড় সুখবর