ওমিক্রনে প্রথম মৃত্যু যুক্তরাজ্যে

ওমিক্রনে প্রথম মৃত্যু যুক্তরাজ্যে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : করোনা ভাইরাসের নতুন ধরন ওমিক্রনকে বলা হয়েছিল কম ভয়ঙ্কর। অন্তত যুক্তরাষ্ট্রের চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা এটাই বলেছিলেন। তবে ওমিক্রনে প্রথম মৃত্যু দেখলো যুক্তরাজ্য। সোমবার বার্তাসংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

সোমবার যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বলেন, ওমিক্রন আক্রান্ত হয়ে কমপক্ষে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

এর আগে রোববার বরিস জনসন সতর্ক করে বলেন, তার দেশে করোনার নতুন ধরন ওমিক্রনের ‘জলোচ্ছ্বাস’ আসছে। এ কারণে তিনি চলতি মাসের মধ্যেই ১৮-এর বেশি বয়সের ব্রিটিশদের করোনার বুস্টার ডোজ দেয়ার লক্ষ্যের কথা জানিয়েছেন।

এক টেলিভিশন ভাষণে রোববার বরিস জনসন বলেন, ‘কারো এ নিয়ে সন্দেহ থাকার কথা নয় যে, ওমিক্রনের জলোচ্ছ্বাস আসছে।’

যুক্তরাজ্যে দ্রুতই বাড়ছে করোনার সংক্রমণ। এ প্রেক্ষাপটে দেশটির স্বাস্থ্য উপদেষ্টারা নতুন করে কোভিড সতর্কতা জারি করেছেন।

গত কয়েক মাস ধরে যুক্তরাজ্যে তৃতীয় ধাপের সতর্কতা জারি ছিল, রোববার থেকে যা পঞ্চম ধাপে উন্নিত করা হয়েছে। এদিন দেশটিতে অন্তত ১ হাজার ২৩৯ জনের দেহে ওমিক্রন শনাক্ত হয়।

সব মিলিয়ে যুক্তরাজ্যে বর্তমানে ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা ৩ হাজার ১৩৭ জন, যা শনিবারের চেয়ে ৬৫ শতাংশ বেশি। শনিবার পর্যন্ত এ সংখ্যা ছিল ১ হাজার ৮৯৮ জন।

গত মাসের শুরুতে দক্ষিণ আফ্রিকায় শনাক্ত হয় ওমিক্রন। ক্রমেই এটি বিশ্বের নানা দেশে ছড়িয়ে পড়ে। এ পর্যন্ত বিশ্বের প্রায় ৬০টি দেশে ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে।

সম্প্রতি বাংলাদেশেও করোনা ভাইরাসের নতুন এ ধরন শনাক্ত হয়। আফ্রিকাফেরত দুই নারী ক্রিকেটারের ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) ওমিক্রনকে ডেল্টার চেয়ে কম ভয়ঙ্কর বলছে। তবে এ ধরনটি যে অনেক বেশি সংক্রমক সেটা নিয়ে তারা দ্বিমত হতে পারছেন না।

গত রোববার (১২ ডিসেম্বর) যুক্তরাজ্যে নতুন করে ৪৮ হাজার ৭১ জনের করোনা শনাক্ত হয়। এদিন করোনা প্রাণ কেড়ে নিয়েছে অন্তত ৫২ জনের।

More News...

কোন ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে ইরানে হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল?

৫০ লাখ ডলার মুক্তিপণ দিয়ে মুক্ত বাংলাদেশি জাহাজ