খালেদা জিয়ার চিকিৎসা: রাষ্ট্রপতির সাক্ষাৎ চেয়েছে ৫ রাজনৈতিক দল

খালেদা জিয়ার চিকিৎসা: রাষ্ট্রপতির সাক্ষাৎ চেয়েছে ৫ রাজনৈতিক দল

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং উন্নত চিকিৎসার কথা বলতে রাষ্ট্রপতির সাক্ষাৎ চেয়ে আবেদন করেছে ৫টি রাজনৈতিক দল।

আবেদনের বিষয়টি বাংলাদেশ জার্নালকে নিশ্চিত করে কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বলেন. গত ১৪ থেকে ১৫ দিন আগে রাষ্ট্রপতির সাক্ষাৎ চেয়ে আবেদন করা হয়েছে।

রাষ্ট্রপতির সাথে সাক্ষাৎ চেয়ে আবেদন করা দল পাঁচটি হলো: বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টি, ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক পার্টি (এনডিপি), ন্যাশনাল পিপলস পার্টি (এনপিপি), বাংলাদেশ জাতীয় দল ও লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টি (এলডিপি)।

সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম জানান, ৫টি দলগুলোর পক্ষে আমি এবং ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক পার্টি চেয়ারম্যান মো. আবু তাহের আবেদনে স্বাক্ষর করেছি।

আবেদনের কোন সাড়া পেয়েছেন কি না- জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখনো কোন সাড়া পায়নি। তবে আমরা সাড়া পাওয়ার আশা করছি।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় ২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি সাজা হলে কারাগারে যান খালেদা জিয়া। এরপর দেশে করোনা মহামারী শুরু হলে খালেদা জিয়ার পরিবারের আবেদনে তাকে গত বছরের ২৫ মার্চ নির্বাহী আদেশে সাময়িক মুক্তি দেয় সরকার। এতে শর্ত ছিল যে, তাকে দেশেই থাকতে হবে।

বিএনপি চেয়ারপারসন কারাগার থেকে বেরিয়ে গুলশানের বাসা ফিরোজায় ওঠেন। পরে করোনায় আক্রান্ত হলে চলতি বছরের প্রায় দুই মাস হাসাপাতালে চিকিৎসা নিয়েছিলেন তিনি।

পরে চার মাসের মাথায় আবার হাসপাতালে ভর্তি হতে হয়েছিল খালেদা জিয়া। ওই সময় ২৬ দিন হাসপাতালে কাটিয়ে বাসায় ফেরার ৫ দিন পর আবারও গত ১৩ নভেম্বর হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাকে।

বর্তমানে হাসপাতালের সিসিইউতে নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে বিএনপি চেয়ারপারসনকে। তিনি ডায়াবেটিস, আর্থ্রাইটিস, ফুসফুস, কিডনি এবং চোখের সমস্যাসহ নানা জটিলতায় ভুগছেন।

এছাড়া বেগম খালেদা জিয়া লিভার সিরোসিসে আক্রান্ত বলেও জানিয়েছেন তার চিকিৎসার জন্য গঠিত হাসপাতালের মেডিকেল বোর্ড।

More News...

কোন ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে ইরানে হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল?

সোনার দাম আবার বাড়লো, ভরি ১ লাখ ১৯ হাজার ৪২৮ টাকা