আফগানিস্তানে তালেবানের হামলায় নিহত ২৩

আফগানিস্তানে তালেবানের হামলায় নিহত ২৩
আন্তর্জাতিক ডেস্ক : আফগানিস্তানের বাদাখশান ও উত্তরাঞ্চলীয় বাঘলান প্রদেশে তালেবানের হামলায় অন্তত ২৩ জন নিহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে তালেবান প্রদেশ দু’টির নান স্থানে হামলা চালায়। পরে নিরাপত্তাবাহিনী বাধা দিলে বাধে সংঘর্ষ, যাতে হতাহতের ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে বেশিরভাগই সাধারণ মানুষ। তবে কয়েকজন নিরাপত্তাবাহিনীর সদস্য ও তালেবানা যোদ্ধাও রয়েছে।

বাদাখশান প্রদেশ পুলিশ বলছে, বৃহস্পতিবার রাতে প্রদেশটির বিভিন্ন স্থান ও নিরাপত্তাচৌকিতে হামলা চালায় তালেবান যোদ্ধারা। সবথেকে বড় হামলাটি চালিয়েছে ফায়জাবাদ শহরে। এতে নিরাপত্তাকর্মীসহ আট ব্যক্তি নিহত হয়। আহত হয়েছে আরও তিন জনের বেশি। যদিও অন্য একটি সোর্স গণমাধ্যমকে বলছে, বাদাখশানে তালেবানের এ হামলায় অন্তত ২০ জন নিহত হয়েছে। নিহতদের মধ্যে একজন তালেবান কমান্ডারও রয়েছে বলে জানিয়েছে সোর্সটি।

এদিকে আফগানিস্তান থেকে বিদেশি সৈন্য প্রত্যাহার হচ্ছে অন্যদিকে নিজেদের পেশিশক্তি বাড়াচ্ছে তালেবান। তালেবান এরই মধ্যে নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে আফগানিস্তানের ১শ’র বেশি জেলা। যেগুলো উদ্ধারে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে আফগান নিরাপত্তাবাহিনী।

এদিকে শুক্রবার প্রায় দুই দশক পর আফগানিস্তানে নিজেদের প্রধান সামরিক ঘাঁটি থেকে বিদায় নিল যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটোর সেনারা। তারা বাগরাম বিমান ঘাঁটি খালি করে দিয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন এক মার্কিন প্রতিরক্ষা কর্মকর্তা। নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক ওই কর্মকর্তা বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো বাহিনীর সব সদস্য বাগরাম বিমান ঘাঁটি ছেড়ে গেছে।

কাবুল থেকে প্রায় ৬০ কিলোমিটার উত্তরে অবস্থিত এই ঘাঁটি থেকেই আফগানিস্তানে সকল বিমান হামলা ও কৌশলগত কার্যক্রম পরিচালনা করতে মার্কিন সামরিক বাহিনী। ঘাঁটিটি এবার আফগান সরকারের হাতে তুলে দেয়া হচ্ছে। আগামী শনিবার সেটি আনুষ্ঠানিকভাবে বুঝিয়ে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন এক আফগান কর্মকর্তা।

এ অবস্থায় সম্প্রতি আফগানিস্তান যুদ্ধে ইতি টানার ঘোষণা দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তিনি জানিয়েছেন, ৯/১১ হামলার দুই দশকপূর্তির আগেই আগামী ১১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আফগানিস্তান থেকে সকল মার্কিন সেনা প্রত্যাহার করা হবে।

সূত্র: তোলো নিউজ

More News...

রাইসির প্রতি জাতিসংঘের শ্রদ্ধা অনুষ্ঠান বয়কট যুক্তরাষ্ট্রের!

কোন ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে ইরানে হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল?